তারা শহীদ ,যারা আগুনে পুড়ে মারা যায়

সাইদুর রহমান: সম্প্রতি ঢাকার চকবাজারের অগ্নিকাণ্ডে শোকগ্রস্ত পুরো জাতি। পুড়ে মারা যাওয়া ব্যক্তিগণ ইসলামের দৃষ্টিতে শহীদ। তারা শহীদের মর্যাদা পাবেন। আহতরা হবেন সবরকারী। আর আল্লাহ সবরকারীদের সাথে আছেন। এ বিষয়ে হাদীসে এসেছে, জাবির ইবনু আতীক (রা.) বলেন, রাসুলুল্লাহ(সাঃ) বলেছেন, “ আল্লাহর রাস্তায় যুদ্ধ করে শহীদ হয়েছে এরূপ ব্যক্তি ছাড়াও সাত শ্রেনীর লোক শহীদের মর্যাদা পাবে । (১) মহামারীতে মৃত ব্যাক্তি শহীদ (২)ডুবে মারা গেছে এরূপ ব্যাক্তি শহীদ (৩) যাতুল জানব বা শ্বাসকষ্ট রোগে যে মারা গেছে সে শহীদ (৪) পেটের রোগে মৃত ব্যাক্তি শহীদ (৫) যে ব্যাক্তি পুড়ে মারা গেছে সে শহীদ (৬) কোন কিছু চাপা পরে মারা যাওয়া ব্যাক্তি শহীদ এবং (৭) প্রসব কষ্টে মৃত নারী শহীদ । ” (আহমদ, আবু দাউদ, নাসঈ-হাদীস সহীহ, আলবানী) )

অন্য এক হাদীসে এসেছে, হযরত আবুল আওয়ার সাইদ ইবনে যায়েদ ইবনে আমর ইবনে নুফায়ল (আশারাহ মুবাশশিরাহ অর্থাৎ পৃথিবীতে জান্নাতের সুসংবাদ প্রাপ্ত ১০ জন সাহাবীর অন্তর্ভুক্ত) বর্ণনা করেন, আমি রাসুল (সা.)-কে বলতে শুনেছি, যে ব্যক্তি তার ধনমালের হেফাজতের কারণে নিহত হয়েছে সে শহীদ। আর যে ব্যক্তি নিজের জীবনের হেফাজতের কারণে নিহত হয়েছে সেও শহীদ। যে ব্যক্তি স্বীয় দ্বীনের হেফাজতকালে নিহত হয়েছে সেও শহীদ আর যে ব্যক্তি নিজের স্ত্রী-সন্তাদের হেফাজতকালে নিহত হয়েছে সেও শহীদ। (আবুদাউদ, তিরমিযি- ইমাম তিরমিযি বলেন হাদিসটি হাসান সহিহ)

আর আগুনে পুড়ে নিহত হওয়ার ব্যাখ্যায় বলা হয়েছে, কেউ যদি আগুনের পাশ দিয়ে যাওয়ার সময় আগুনের উত্তাপ অনুভব করে এবং সে সাধারণ উত্তাপের ফলে রক্তচাপ জনিত কারণ কিংবা অন্য কোনো কারণে মারা যায়, তাহলে তাকে শহীদ বলা হবে না। কিন্তু যদি সে আগুনের মধ্যে পড়ে যায়, আগুনে ঝলসে যায়, বা পুড়ে যায়, তাহলে সে শহীদ । বিদ্যুতের ক্ষেত্রেও আগুনের বিধানই প্রয়োগ হবে । (নিহায়া, জাওয়াহিরুল ফতোয়া)

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedin
Share:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *