কুষ্টিয়ায় হেরোইন ও গাঁজা মামলায় এক যুবকের যাবজ্জীবনসহ অপর দুইজনের কারাদন্ড

কুষ্টিয়া প্রতিনিধি : কুষ্টিয়া ভেড়ামারা থানার হেরোইন ও গাঁজা মামলায় একজনের যাবজ্জীব এবং অপর দুইজনের দেড় বছরের কারাদন্ডসহ এক লক্ষ টাকা জরিমানা আদেশ দিয়েছেন আদালত। সোমবার দুপুর সাড়ে ১২টায় কুষ্টিয়া জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক অরূপ কুমার গোস্বামী জনাকীর্ণ আদালতে আসামীদের উপস্থিতিতে এই রায় ঘোষনা করেন।

যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত হলেন-ভেড়ামারা উপজেলার বাহিরচর গ্রামের ইয়াকুল মন্ডলের ছেলে জিয়ারুল ইসলাম(৩৫) এবং একই মামলায় দেড় বছরের সাজাপ্রাপ্ত অপর দুইজন হলেন- হঠাৎপাড়া (ফারাকপুর) গ্রামের মজিবর সেখের ছেলে বাবুল সেখ (৫০) ও বারোমাইল গ্রামের মৃত: আকবর হোসেনের ছেলে জাহিদুল ইসলাম(৪০)।

আদালত সূত্রে জানায়, ২০১৭ সালের ২২ সেপ্টেম্বর রাত ০৯টায় ভেড়ামারা উপজেলার বারোমাইল বাজারে র‌্যাব-১২, সিপিসি-১ কুষ্টিয়া ক্যাম্পের অভিযানিক দলের অভিযানকালে আসামীদের আটক করে দেহ তল্লাশী করলে তাদের দেহে বিশেষ কৌশলে লুকিয়ে রাখা ও ব্যাগ থেকে সাড়ে ৪ কেজি গাঁজা ও ৬০০গ্রাম হেরোইন উদ্ধার করে র‌্যাব। পরে উদ্ধারকৃত আলামতসহ আটককৃতদের বিরুদ্ধে র‌্যাব সদস্য এসআই ওমর আলী বাদি হয়ে ১৯৯০ সালের মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রন আইনের দ:বি: ১৯এর (১) ধারার ১(খ) ও৭(ক) ধারায় মামলা করে ভেড়ামারা থানায় সৌপর্দ করেন। মামলাটি তদন্ত শেষে ২০১৭ সালের ৩১ অক্টোবর আদালতে চার্জশীট দাখিল করেন পুলিশ।

কুষ্টিয়া জজ কোর্টের সকরারী কৌশুলী এ্যাড. অনুপ কুমার নন্দী জানান, আসামীদের বিরুদ্ধে ১৯৯০ সালের মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রন আইনের দ:বি: ১৯এর (১) ধারার ১(খ) ধারায় আনীত অভিযোগের চার্জ গঠন পূর্বক রাষ্ট্রপক্ষে দীর্ঘ স্বাক্ষ্য শুনানী শেষে হেরোইন ব্যবসায় জড়িত অভিযোগ সন্দেহাতীত প্রমানিত হওয়ায় আসামী জিয়ারুল ইসলাম(৩৫) কে যাবজ্জীবন কারাদন্ডসহ ১লক্ষ টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও ১বছর এবং একই আইনের ৭(ক) ধারায় গাঁজা ব্যবসায় জড়িত অভিযোগ প্রমানিত হওয়ায় আসামী বাবুল সেখ ও জাহিদুল ইসলামদ্বয়কে দেড় বছরের কারাদন্ড দুই হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও ২মাসের কারাভোগের আদেশ দিয়েছেন আদালত।

Facebooktwitterredditpinterestlinkedin
Share:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *