পপআপ ক্যামেরা এখন চলছে

অনলাইন ডেস্ক: এ বছর পপআপ ক্যামেরাতে বেশি আগ্রহ দেখা যাচ্ছে বলে দাবি করেছে মোবাইল ফোন নির্মাতা ভিভো। তারা এখন এ ধরনের ক্যামেরাপ্রযুক্তিতে বেশি গুরুত্ব দিচ্ছে। এতে নিখুঁত সেলফি তোলার পাশাপাশি ফুল ভিউ ডিসপ্লে সুবিধা পাওয়া যায়।

ভিভো কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, ২০১৮ সালে ভিভোর নেক্স মোবাইলে প্রথমবারের মতো পপআপ সেলফি ক্যামেরা ব্যবহৃত হয়। মোবাইলের মূল কাঠামোর ভেতরে আলাদা চেম্বারে এ ক্যামেরা গোপনে বসানো থাকে। সেলফি মোডে গেলে তা ভেসে উঠে ছবি তোলে।

বাজারে প্রচলিত মোবাইল ফোনের সামনের স্ক্রিনে বসানো থাকে সেলফি ক্যামেরা। এতে একদিকে স্ক্রিনের পরিধি ছোট হয়ে পড়ে। অন্যদিকে আধুনিক প্রযুক্তির বিবর্তনের যুগে তা দেখতেও বেমানান। দীর্ঘদিন ধরে সেলফি ক্যামেরার জন্য বিকল্প স্থান খোঁজার চেষ্টা করছিল মোবাইল নির্মাতারা। ভিভোর পপআপ সেলফি ক্যামেরা তার একটি সমাধান।

ভিভো জানায়, ব্যবহারকারীরা যখনই ফোনের সেলফি মোডে যাবেন, পপআপ স্বয়ংক্রিয়ভাবেই চালু হয়ে যাবে। ছবি তোলার পর তাৎক্ষণিক ক্যামেরা বন্ধ হয়ে যাবে। এতে ব্যবহারে মোবাইল স্ক্রিনের জায়গা কমবে না। ফ্রেমহীন স্মার্টফোন নকশার ক্ষেত্রে এটি গুরুত্বপূর্ণ। ২০১৯ সালে নচ ফ্রি ও ফ্রেমহীন (বেজেললেস) ডিজাইনের মোবাইল মিড রেঞ্জের দামে পাওয়ার ক্ষেত্রে পপআপ ক্যামেরা বড় প্রত্যাশা তৈরি করেছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.